tmc-16329154913x2

গোয়ায় শাখা বিস্তার করছে তৃণমূল।স্বয়ং গোয়ার প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী লুই জিন ফ্যালেরিও সহ ৮ জন বিধায়ক তৃণমূলে যোগদান করেছেন। লুই জিন-কে তৃণমূল কংগ্রেসের সর্বভারতীয় সহ সভাপতির পদে বসানো হয়েছে। এছাড়াও ক্রীড়া জগতের ২ বিশেষ ব্যক্তিত্ব ডেনজিল ফ্রাঙ্কো এবং লেনি ডা গামা তৃণমূল কংগ্রেসে যোগদান করেছেন। ফলে ধীরে ধীরে গোয়ায় যে শক্তি বাড়িয়ে চলেছে তৃণমূল দল, তাতে সন্দেহ নেই। এবার আরও ৩ জন পরিচিত ব্যক্তিত্ব আসতে চলেছেন ‘বাঘিনি’ মমতা ব্যানার্জীর দলে।

লুই জিন ফ্যালেরিও সর্বভারতীয় সহ সভাপতি হলেন


হ্যাঁ, অভিনেত্রী ও সমাজকর্মী নাফিসা আলি বাংলার নেত্রী মমতাকে ‘বাঘিনি’ বলেই সম্বোধন করেছেন। উল্লেখ্য, নাফিসা আলির জন্মস্থান কলকাতা এবং ২০০৪ সালে কংগ্রেসের প্রার্থী হয়ে মমতার বিপরীতেই নির্বাচন লড়েছিলেন। এবার সেই নাফিসা কংগ্রেস ও বিজেপির তীব্র সমালোচনা করে মমতার দলে আসতে চলেছেন। এছাড়াও তৃণমূলে যোগ দিচ্ছেন গায়ক লাকি আলি ও পপ শিল্পী রেমো ফার্নান্ডেজ।

ডেরেক ‘ও ব্রায়েনের সাথে নাফিসা আলি এবং লাকি আলি


তৃণমূলের বরিষ্ঠ সাংসদ নেতা সৌগত রায় বলেছেন, “লাকি আলি, রেমো ফার্নান্ডেজ ও নাফিসা আলি যোগাযোগ করেছেন তৃণমূলের সঙ্গে। আমারা চাইবো ছোট আঞ্চলিক দলে না থেকে তারা আমাদের দলে চলে আসুন। গোয়ায় মমতা ব্যানার্জী রয়েছেন। সেখানেই বিস্তারিত আলোচনা হবে”।

রেমো ফার্নান্ডেজ


গোয়ার এই বিশিষ্ট জনেদের পাশাপাশি তৃণমূলের সাথে হাত মেলাতে চলেছে কিরন কান্ডোলকর পরিচালিত ‘গোয়া ফরোয়ার্ড পার্টি’।


প্রসঙ্গত, আগের দিনই গোয়া ফরোয়ার্ড পার্টির নেতৃত্ব কিরন প্রকাশ্যেই বিজেপিকে ‘অসুরের’ সাথে তুলনা করে বলেছিলেন, “পশ্চিমবঙ্গ থেকে মা দুর্গাকে নিয়ে আসতে হবে”। এই মন্তব্যে বিতর্কের ঝড় উঠছে গোয়ার রাজনৈতিক আবহাওয়ায়। তবে তাঁরা যে তৃণমূলে জোট বাঁধছেন সেকথা ‘টাইমস অফ ইন্ডিয়ায়’ ইতিমধ্যে প্রকাশিত। গোয়ায় মমতে ব্যানার্জীর তুমুল জনপ্রীতি যে কংগ্রেস ও বিজেপির পায়ের জমি আলগা করতে চলেছে বলাই বাহুল্য।


২৮ অক্টোবর গোয়ায় যাচ্ছেন মমতা। রাজনৈতিক হাওয়ায় কানাকানি — ওইদিন নাকি আরো বড় কোনো চমক অপেক্ষা করে রয়েছে!

By Partha Roy Chowdhury (কিঞ্জল রায়চৌধুরী)

Partha Roy Chowdhury (Bengali: কিঞ্জল রায়চৌধুরী) is staff journalist VoiceBharat News. email: kinjol@voicebharat.com