কম মুল্যে আপনার পন্যের বিজ্ঞাপন দিন অথবা খবরের মাধ্যমে প্রচার করুন আপনার ব্যাবসা, বিস্তারিত জানতে WhtasApp / Call 8585047304

ছাত্রদের জন্য সুখবর! চমকপ্রদ ঘোষণা মুখ্যমন্ত্রীর

Current India Economy Features Politics

কন্যাশ্রী তো ছিলই, আর এবার ছাত্রদের প্রতি বিশেষ নজর দিতে উদ্যোগী হলেন মুখ্যমন্ত্রী। মধ্যমগ্রামের এক সভামঞ্চ থেকে তিনি ঘোষণা করলেন, “১-লা জানুয়ারি দিনটাকে ছাত্রদিবস হিসেবে পালন করা হবে”।


এদিন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় বলেন, “আমরা ১২ জানুয়ারি যুবদিবস পালন করি। এছাড়াও কন্যাশ্রী দিবস পালন করা হয়। কিন্তু ছাত্রদের জন্য কোনো বিশেষ দিন নেই। তাই বছরের প্রথম দিন অর্থাৎ ১-লা জানুয়ারি দিনটা ছাত্রদের জন্য উৎসর্গ করা হবে। ওইদিন পালিত হবে ছাত্রদিবস”।

কম মুল্যে আপনার পন্যের বিজ্ঞাপন দিন অথবা খবরের মাধ্যমে প্রচার করুন আপনার ব্যাবসা, বিস্তারিত জানতে WhtasApp / Call 8585047304


ইতিমধ্যেই শিক্ষার্থীদের জন্য একাধিক প্রকল্প চালু করেছে রাজ্য সরকার। স্টুডেন্ট ক্রেডিট কার্ডের মাধ্যমে লোন নেওয়ার পদ্ধতি চালু রয়েছে। কোঅপারেটিভ ব্যাঙ্ক ছাড়াও দুটি রাষ্ট্রায়ত্ত ব্যাঙ্ক ও কিছু বেসরকারি ব্যাঙ্ক এই প্রকল্পে লোন দেওয়ার জন্য রাজ্যসরকারের সাথে চুক্তিবদ্ধ হয়েছে।

খবর সূত্র অনুযায়ী স্টুডেন্ট ক্রেডিট কার্ডের মাধ্যমে লোনের আবেদন ১ লক্ষ্য অতিক্রম করে গেছে। উচ্চশিক্ষা দপ্তর জানাচ্ছে, এখনো অবধি ১৪০০ শিক্ষার্থী লোন পেয়ে গেছে। তারই মধ্যে এদিন ছাত্রদের জন্য বিশেষ দিন ও বিশেষ সুবিধা দিতে বদ্ধপরিকর হলেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়।

১-লা জানুয়ারি ছাত্রদিবস উদযাপনের পাশাপাশি তিনি আরো ঘোষণা করেছেন– আগামী ২০ নভেম্বর ছাত্রমেলা করা হবে। ওই মেলায় ১০ জন বাছাই ছাত্রছাত্রীকে স্টুডেন্ট ক্রেডিট কার্ড পাওয়ার সুুযোগ দেওয়া হবে। শুধু এই একটা দিনই নয়, বেশ কিছুদিন বা একমাস অন্তর শিক্ষার্থীদের জন্য এই ধরনের মেলা আয়োজন করার প্রস্তাব দিলেন মুখ্যমন্ত্রী।


এদিনের সভায় মুখ্যসচিব হরিকৃষ্ণ দ্বিবেদী, দমকল মন্ত্রী সুজিত বসুু , রাজ চক্রবর্তী, নুসরত জাহান প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন। এঁদের সাক্ষী রেখেই এদিন শিক্ষার্থীদের ভবিষ্য পরিকল্পনার কথা তুলে ধরেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়।তিনি বলেছেন, “পড়ুয়ারাই আমাদের ভবিষ্যত। তাই বছরের প্রথম দিনটাই ওদের জন্য উৎসর্গ করছি”।