IMG_20211217_182729

এবার রাজধানী দিল্লীর বিখ্যাত আকবর রোডের নাম বদলের প্রস্তাব দিলেন নিউদিল্লী মিউনিসিপাল কাউন্সিলের সদস্য গিরীশ সচদেব। প্রয়াত ভারতীয় সেনানায়ক বিপিন রাওয়াতের নামে রাস্তাটির নতুন নামকরণের প্রস্তাব দেওয়া হয়েছে।


দিল্লীর ইন্ডিয়া গেট থেকে তিনমূর্তি ভবন পর্যন্ত বিস্তৃত এই আকবর রোড, শহরের সবচাইতে ব্যস্ততম জরুরী সড়ক। প্রতিরক্ষা মন্ত্রীর বাসভবন থেকে শুরু করে কংগ্রেসের কার্যালয় অফিস সবকিছুই এই রাস্তার ওপরই রয়েছে। শহরের এই ব্যস্ততম রাস্তার নাম বদলে সদ্যপ্রয়াত চিফ অফ ডিফেন্স স্টাফ বিপিন রাওয়াতের নামে রাখার কথা তুললেন নিউদিল্লী মিউনিসিপাল কাউন্সিলের সদস্য গিরীশ সচদেব।

তিনি বলেন ,”এটি দিল্লীর গুরুত্বপূর্ণ একটি রাস্তা। তাই আমি পুরসভা র কাছে অনুরোধ করেছি যাতে আকবর রোডের নাম বদলে বিপিন রাওয়াতের নামে রাখা হয়। সারা দেশের মানুষ প্রয়াত সেনানায়ককে শ্রদ্ধা জানাচ্ছেন। নিউদিল্লী পুরসভা এই রাস্তাটি সেনাপ্রধানের নামে উৎসর্গ করলে তাঁর স্মৃতির উদ্দেশ্যে শ্রদ্ধা জ্ঞাপন করা হবে, একই সঙ্গে দেশের যুবসম্প্রদায়ও সেনানায়কের থেকে প্রেরণা পাবেন।”

গিরীশ সচদেব ছাড়াও এই রাস্তার নাম বদলের কট্টর দাবি তোলেন বিজেপির মিডিয়া শাখার চিফ নবীন জিন্দল। তিনি বলেন, “আকবর একজন হানাদার আক্রমণকারী। দেশের রাজধানীর এত গুরুত্বপূর্ণ রাস্তার নাম কোনও হানাদারের নামে রাখা উচিত নয়।”


হেলিকপ্টার দুর্ঘটনায় সস্ত্রীক বিপিন রাওয়াত সহ ১৩ জনের মৃত্যুর পর মিউনিসিপাল কাউন্সিলকে এই মর্মেই চিঠি লিখেছিলেন নবীন জিন্দল। তিনি লিখিত ভাবে বলেন, “দেশের প্রথম সিডিএস, সেনাপ্রধানের স্মৃতি অক্ষয় করে রাখতে তাঁকে সম্মান জানাতে এর থেকে ভালো উদ্যোগ আর হয়না।”

জিন্দলকে সমর্থন জানিয়েছেন মিউনিসিপাল কাউন্সিলের চেয়ার পার্সন সতীশ উপাধ্যায়। তিনি বলেছেন, “নেটমাধ্যমে এই দাবি নিয়ে প্রচুর লেখা আমারো চোখে পড়েছে। আশা করি দিল্লী পুরসভা এই দাবি সহানুভূতির সাথে বিবেচনা করে দেখবে। ”

যদিও আকবর রোডের নাম পাল্টানোর প্রস্তাব এর আগেও উঠেছিল। এর আগে কেন্দ্রের মন্ত্রী ভি কে সিং এই প্রস্তাব তুলে, আকবর রোডের নাম পাল্টে মহারাণা প্রতাপ রোড রাখার কথা বলেছিলেন। কিছু ব্যাক্তি গায়ের জোরেই রাস্তার সাইনবোর্ডে রাণাপ্রতাপের নাম সম্বলিত ছবি লেপ্টে দিয়েছিলেন।


চলতি বছরের অক্টোবর মাসেই ‘হিন্দু সেনা’ নামধারী এক সংগঠন আকবর রোড লেখা রাস্তার সাইনবোর্ড ভাঙচুর করে কালি মাখিয়ে দিয়েছিল বলে জানা যাচ্ছে। ওই সংগঠনের দাবি ছিল রাস্তার নাম বদলে ‘সম্রাট হিমু বিক্রমাদিত্য মার্গ’ রাখা হোক। তবে এপর্যন্ত কোনও প্রস্তাব বাস্তবায়িত হয়নি।


আগস্ট মাসে গিরীশ সচদেব নিউ দিল্লী মিউনিসিপাল কাউন্সিলের সদস্য নিযুক্ত হন। তিনিই আরো একবার দিল্লীর আকবর রোডের নাম পাল্টানোর বিষয়টি তুলেছেন। আগামী ২২ ডিসেম্বর পুরসভার মিটিংয়ে এব্যাপারে সিদ্ধান্ত জানানো হবে।

By Partha Roy Chowdhury (কিঞ্জল রায়চৌধুরী)

Partha Roy Chowdhury (Bengali: কিঞ্জল রায়চৌধুরী) is staff journalist VoiceBharat News. email: kinjol@voicebharat.com