b49cd6a54bfedc1b3ba1e8a7c789db8a_original

মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের নির্ধারিত জনহিতকর প্রকল্প ‘দুয়ারে সরকার’ ইতিমধ্যেই সাড়া ফেলেছে। এর আগে আগস্ট ও সেপ্টেম্বর মাসে ‘দুয়ারে সরকার’ প্রকল্পের প্রথম পর্ব সফলভাবেই সমাধা হয়েছে। ১৫ সেপ্টেম্বর পর্যন্ত চলা ওই ক্যাম্প পূজোর প্রাক্কালে সাময়িক ভাবে বন্ধ হয়ে যায়। এবার আবারো সে প্রকল্প শুরু হতে চলেছে — এমনটাই ঘোষণা করেছেন মুখ্যমন্ত্রী।


পরিকল্পনা আগে থেকেই চলছিল। ২৫ অক্টোবর এক সাংগঠনিক বৈঠকে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় জানিয়েছিলেন, “উপনির্বাচনের কারণে দুটি এলাকায় দুয়ারে সরকার পুরো করতে পারিনি। চিন্তা নেই, কালীপূজোর পর আবার শুরু হবে”। এবার একেবারে দিন ক্ষণ ঘোষণা করে দিলেন মুখ্যমন্ত্রী।
আজ সোমবারই জানবাজারের কালীপূজো উদ্বোধন করতে এসেছিলেন মমতা। সেখানেই তিনি ঘোষণা করেন, “১৬ নভেম্বর থেকে আবার দুয়ারে সরকার শুরু হচ্ছে”।


প্রসঙ্গত, মুখ্যমন্ত্রী আয়োজিত এই দুয়ারে সরকার প্রকল্পের মধ্যে রয়েছে একাধিক কর্মসূচি যেমন– স্বাস্থ্য সাথী, খাদ্যসাথী, স্টুডেন্ট ক্রেডিট কার্ড, কৃষক বন্ধু এবং লক্ষীর ভান্ডার।


উল্লিখিত প্রকল্পের আওতাভুক্ত ‘লক্ষীর ভান্ডার’ ইতিমধ্যেই সর্বাধিক জনপ্রিয় হয়েছে। সেপ্টেম্বরের ১ তারিখ থেকেই বিভিন্ন এলাকায় অসংখ্য মহিলা আবেদন পত্র জমা দিয়েছেন। উল্লেখযোগ্য এই ‘লক্ষীর ভান্ডার’ প্রকল্পের দ্বারা দেড় কোটিরও বেশি মহিলা উপকৃত হবেন বলে মনে করা হচ্ছে।

একটি পরিবারের যিনি কর্ত্রী, তেমন মহিলারাই এর মাধ্যমে সুবিধা পাবেন। এক্ষেত্রে সাধারণ পদবিধারী অর্থাৎ General cast এর মহিলারা মাসে ৫০০ টাকা পাবেন, আর SC, ST এবং OBC পরিবারের মহিলারা পাবেন মাসে ১০০০ টাকা।
জনপ্রিয় ‘দুয়ারে সরকার’ আবার শুরু হলে আরো বেশি সংখ্যক মহিলারাই আবেদনের অপেক্ষায় রয়েছেন।

By Partha Roy Chowdhury (কিঞ্জল রায়চৌধুরী)

Partha Roy Chowdhury (Bengali: কিঞ্জল রায়চৌধুরী) is staff journalist VoiceBharat News. email: kinjol@voicebharat.com