IMG_20220125_165203

এবারের প্রজাতন্ত্র দিবস ক্রমশ আরো বিতর্কিত হয়ে উঠছে। প্রথমত পশ্চিমবঙ্গের ‘নেতাজি’ ট্যাবলো বাতিল ঘোষণা করার ফলে বিতর্কের সূত্রপাত। এবার বাদ পড়ল গান্ধীজির প্রিয় প্রার্থনা সঙ্গীতের সুর ‘অ্যাবাইড উইথ মি।’


প্রতিবার ২৬ থেকে ২৯ জানুয়ারি পর্যন্ত তিনদিন ব্যাপি অনুষ্ঠানের শেষ দিনে ওই সঙ্গীতটি বাজিয়েই সমাপ্তি ঘোষণা করা হত। এর একটা বড় কারণ, ২৯ জানুয়ারি মহাত্মা গান্ধীর মৃত্যুদিবস। তাই তাঁর ইচ্ছাকে সম্মান জানাতেই সমাপ্তি সঙ্গীত হিসেবে এই গীতটি বাজানো হত। আর এবার কেন্দ্রীয় সরকারের তরফে জানানো হয়েছে প্রজাতন্ত্র দিবসে বাজানো হবেনা এই গান।


সাড়া পড়েছে রাজনৈতিক মহলে। ইতিমধ্যেই এই সিদ্ধান্তে ক্ষোভ প্রকাশ করে ট্যুইট করেছেন তৃণমূল কংগ্রেসের মুখপাত্র ডেরেক ও’ ব্রায়েন। তিনি বলেছেন, “আমি খুব কমই এই সঙ্গীত শুনেছি। কখনো কখনো গীর্জা অথবা চ্যাপেলে এই সুর বাজানো হত। ছোটবেলায় স্কুলে পড়ার সময় থেকেই বিটিং রিট্রিটে এই গান শুনে এসেছি। কিন্তু সুশাসন দিবসের নির্মাতাদের কাছ থেকে এছাড়া আর কীইবা আশা করা যেতে পারে!”


এমনকি ভারতীয় সেনাবাহিনীর প্রাক্তন ডিরেক্টর জেনারেল বিনোদ ভাটিয়াও বলেছেন,”অ্যাবাইড উইথ মি সঙ্গীতটি সেনা-সংস্কৃতির সাথে জড়িত তাই এই গানের সঙ্গে জওয়ানরা একাত্ম বোধ করেন।”

তবুও কেন বাদ দেওয়া হল এই গান? এর কোনও সুষ্ঠু উত্তর পাওয়া যায়নি। তবে আরেকটি সূত্র মারফত জানা যাচ্ছে, ‘অ্যাবাইড উইথ মি’ না বাজিয়ে তার জায়গায়  ‘সারে জাঁহা সে আচ্ছা’-র সুর বাজানো হবে।
তবে ‘অ্যাবাইড উইথ মি’ বাদ যাওয়ায় গান্ধীবাদীরা প্রবল ক্ষুব্ধ হয়েছেন।

 

By Partha Roy Chowdhury (কিঞ্জল রায়চৌধুরী)

Partha Roy Chowdhury (Bengali: কিঞ্জল রায়চৌধুরী) is staff journalist VoiceBharat News. email: kinjol@voicebharat.com