IMG_20220516_160441

এইমূহুর্তে পাকিস্তানের চেয়েও চীন সীমান্তে চ্যালেঞ্জ বেশি বলে মনে করছে ভারতের প্রতিরক্ষা বাহিনী।
ভারতীয় সেনাবাহিনীর নবনিযুক্ত প্রধান জেনারেল মনোজ পান্ডে বলেছিলেন , “লাইন অফ কন্ট্রোলে বিন্দুমাত্র ভুল পদক্ষেপ সহ্য করা হবে না।” চিনকে উদ্দেশ্য করে নব্য সেনাপ্রধান সরাসরি এই হুঁশিয়ারি দেন।

পাশাপাশি তিনি জানান, বিপক্ষের সাথে আলোচনার মাধ্যমে আমরা সমস্যার সমাধান করার ব্যাপারে আমরা যথেষ্ট আত্মবিশ্বাসী। তবে বিপক্ষ অন্যায় পদক্ষেপ নিলে তার কড়া জবাব দিতে ভারত পিছপা হবেনা। চিন সীমান্তে সেনাসংগঠনের দক্ষতার ব্যাপারেও তিনি বিপক্ষকে সতর্ক করে দেন জেনারেল পান্ডে।


সম্প্রতি ভারতীয় সেনাবাহিনী লাদাখ সেক্টরের ৬ ডিভিশন সৈন্যকে লাইন অফ কন্ট্রোলে স্থানান্তরিত করেছে। তাছাড়াও গত দুই বছরে চিন সীমান্তে সৈন্য মোতায়েন চলছিলই। সংবাদসংস্থা ANI একটি প্রতিবেদন মারফত জানিয়েছে, এখনও পর্যন্ত ৩৫ হাজার সেনাকে চীন সীমান্তে স্থানান্তরিত করা হয়েছে।

এই বিপুলসংখ্যক সেনাবাহিনীর মধ্যে বেশ কয়েকজন সন্ত্রাসদমনে সক্রিয় ভূমিকায় ছিল। স্টেট রাইফেলসের একটি ডিভিশনকেও জম্মু ও কাশ্মীর থেকে থেকে সরিয়ে পূর্ব লাদাখ সেক্টরে মোতায়েন করা হয়।
একই পদ্ধতিতে তেজপুরের গজরাজ কর্পসের অধীনে আসাম ডিভিশনকে সরিয়ে উত্তর-পূর্বে চীন সীমান্তের দায়িত্বে বহাল করা হয়েছে।


এই সৈন্য স্থানান্তর প্রক্রিয়া যথেষ্ট পরিকল্পনা মাফিক সংগঠিত করা চলছে। সাম্প্রতিক অতীতে চিন যেভাবে ভারতীয় পোস্টের বিরুদ্ধে একচেটিয়া সেনাবাহিনী বহাল করেছে তার জবাব দিতেই ভারতকেও সেনাবাাহিনী স্থানান্তর করতে হচ্ছে। দুপক্ষই একে অপরকে টেক্কা দিতে হাজার হাজার সৈন্য মোতায়েন করে চলেছে অনেকদিন ধরেই। চিন সীমান্তের উত্তেজনার বাতাবরণও তৈরি হচ্ছে সমানে সমানে। এই পরিস্থিতিতেই সৈন্য স্থারান্তর নিয়ে জেনারেল মনোজ পান্ডে ভারতীয় সেনাবাহিনীর অবস্থান ও আত্মবিশ্বাস সম্পর্কে স্পষ্ট মতামত দিলেন।

By Partha Roy Chowdhury (কিঞ্জল রায়চৌধুরী)

Partha Roy Chowdhury (Bengali: কিঞ্জল রায়চৌধুরী) is staff journalist VoiceBharat News. email: kinjol@voicebharat.com